বৃহস্পতিবার , ৪ মার্চ ২০২১ | ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
  1. অনুষ্ঠান
  2. অর্থনীতি
  3. আইন আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. করোনা সচেতনতা
  6. করোনাভাইরাস
  7. খেলাধুলা
  8. গণমাধ্যম
  9. চাকরীর খবর
  10. জাতীয়
  11. টিভি Live
  12. তথ্যপ্রযুক্তি
  13. দেশ জুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী-ও-শিশু

মালয়েশিয়ায় রোহিঙ্গা পাচারের নেপথ্যে কে এই জাফর?

প্রতিবেদক
ltvofficial
মার্চ ৪, ২০২১ ৬:৫৬ অপরাহ্ণ

মালয়েশিয়ায় নকশাবন্দি জিকিরের নামে পাচার হচ্ছে রোহিঙ্গা। এর পেছনে কাজ করছে মালয়েশিয়ায় থাকা ইউএন কার্ডধারী মুহাম্মাদ বিন জাফর আহমেদ। তার কাছে রয়েছে বাংলাদেশি পাসপোর্টও।

পাসপোর্ট অনুযায়ী জাফরের স্থায়ী ঠিকানা টেকনাফ, কক্সবাজার এবং ইউএন কার্ডে মিয়ানমারের নাগরিক মুহাম্মাদ বিন জাফর আহমেদ নামে পরিচয় পাওয়া যায়।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, ২০১৬ সাল থেকে জাফর নকশাবন্দি জিকির মজলিশের আমন্ত্রণপত্র ব্যবহার করে বাংলাদেশের টেকনাফ হয়ে শতশত রোহিঙ্গা পাচার করেছে মালয়েশিয়ায়। পাচারের সময় জনপ্রতি দুই থেকে আড়াই লাখ করে শতকোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার অনেক অভিযোগ রয়েছে জাফরের বিরুদ্ধে।

কথা বলতে গেলেই তার নিয়ন্ত্রিত সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে মারধর করে বলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ভুক্তভোগী জানিয়েছেন। মারধরের অভিযোগ এনে মালয়েশিয়ায় কয়েকটি পুলিশ রিপোর্টও করা হয়েছে।

২০১৫ ও ২০১৬ সালে উলুলাঙ্গাত মিফতাহুল উলুম কাযাঙ্গ, কুয়ালালামপুর মাদরাসায় অবৈধ চাকরি থাকাকালীন সে ওই মাদরাসার ছাত্র-শিক্ষককে দু’ভাগে বিভক্ত করার অভিযোগ প্রমাণের পর মাদরাসা থেকে বের করে দেয়া হয়।

কে এই জাফর?

মুহাম্মাদ বিন জাফর আহমেদ নামে পরিচয়দানকারী এই ব্যক্তি দুবাই থাকাবস্থায় পাকিস্তানি বিভিন্ন জঙ্গিগোষ্ঠীর সঙ্গে নিয়মিত বৈঠক এবং নিয়মিত পাকিস্তান আসা-যাওয়া করত। ওই সময় পাকিস্তানি জঙ্গিগোষ্ঠীর কাছ থেকে প্রশিক্ষণ নেয়। দুবাই সরকার তাকে জঙ্গি হিসেবে চিহ্নিত করে ২০১২ সালে দুবাই থেকে বের করে দেয়া হয়।

সেখানে কোটি টাকা লুট করে প্রবাসী বাংলাদেশিদেরকে পথে বসিয়েছে এমন অভিযোগও রয়েছে। ওইসব ভুক্তভোগীরা ২০১২ সালে টেকনাফের নীলা এলাকায় আটক করলে পরে স্থানীয় এক মাওলানার সহযোগিতায় ছাড়া পেয়ে নতুন পাসপোর্ট করে ২০১৩ সালে মালয়েশিয়া পালিয়ে যায়। (সূত্র: দৈনিক দৈনন্দিন, ২ রা এপ্রিল, ২০১৬)।

২০১৬ সাল থেকে নকশাবন্দি জিকির মজলিশের আমন্ত্রণের নামে বাংলাদেশি ও রোহিঙ্গা পাচারের পাশাপাশি বাংলাদেশে পাকিস্তান ভিত্তিক উগ্র রাজনৈতিক মুভমেন্ট তৈরিতে গোপন বৈঠক ও লেভেল ফিল্ড তৈরি করছে বলেও অভিযোগ ওঠেছে।

মাওলানা মুহাম্মদ বিন জাফরের রয়েছে একটি রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী গ্রুপ (আরসা)। এছাড়া বাংলাদেশে বসবাসরত রোহিঙ্গাদের এক শক্তিশালী সন্ত্রাসী গ্রুপ তৈরি করে যাচ্ছে, (সূত্র: দৈনিক দৈনন্দিন, ২রা এপ্রিল, ২০১৬)।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বহুরূপী জাফর রোহিঙ্গা লোকদের কাছে গিয়ে নিজকে রোহিঙ্গা আবার বাংলাদেশিদের কাছে গিয়ে বাংলাদেশি মাওলানা মুহাম্মদ বিন জাফর পরিচয়ে মালয়েশিয়ায় বিভিন্ন জায়গায় প্রবাসীদেরকে মারধর, হুমকি ধামকি দিয়ে আসছে।

যা পাঁচটি পুলিশ রিপোর্ট থেকে বেরিয়ে আসছে তার অপকর্ম। জাফরের বাংলাদেশি পাসপোর্ট বাতিলসহ তার সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে বাংলাদেশ হাইকমিশনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ভুক্তভোগী প্রবাসীরা।

সর্বশেষ - বিনোদন